خبرگزاری شبستان

شنبه ۲۸ مرداد ۱۳۹۶

السبت ٢٧ ذو القعدة ١٤٣٨

Saturday, August 19, 2017

বিজ্ঞাপন হার

কোম শহরের জুম্মার নামাজে শহীদ হোজাজির পরিবারকে সম্মাননা

প্রাদেশিক বিভাগ: আজ জুম্মার নামাজের পর এক অনুষ্ঠানে আয়াতুল্লাহ জান্নাতি ও আয়াতুল্লাহ সাঈদির উপস্থিতিতে শহীদ মোহসেন হোজাজির পরিবারকে সম্মানোনা জানানো হয়।

নির্বাচিত সংবাদ

মতামতজরিপ  :   Monday, April 24, 2017 নির্বাচিত সংবাদ : 26336

মিন্না আহলুল বাইতের মর্যাদায় পৌছানোর পন্থা
মাহদাভিয়াত বিভাগ: হুর একজন সাহাসী মানুষ ছিলেন আর এজন্যই তাকে ইমাম হোসাইনের পত রোধ করার জন্য পাঠানো হয়। কিন্তু যখন সে বুঝতে পারে যে ভুল পথে যাচ্ছে তখন সে তার সেই সাহসের ফলেই সত্য পথে ফিরে আসে।

মিন্না আহলুল বাইতের মর্যাদায় পৌছানোর পন্থা         

মাহদাভিয়াত বিভাগ: হুর একজন সাহাসী মানুষ ছিলেন আর এজন্যই তাকে ইমাম হোসাইনের পত রোধ করার জন্য পাঠানো হয়। কিন্তু যখন সে বুঝতে পারে যে ভুল পথে যাচ্ছে তখন সে তার সেই সাহসের ফলেই সত্য পথে ফিরে আসে।

শাবিস্তান বার্তা সংস্থার রিপোর্ট: কারবালার ঘটনা মানুষের জন্য একটি বড় শিক্ষা ক্ষেত্র। মানুষ কারবালার ইতিহাসকে সঠিকভাবে অধ্যায়ন করলে সত্য ও মিথ্যাকে সুন্দরভাবে বুঝতে পারবে। পবিত্র কোরআনের বলা হয়েছে: فَاعْتَبِرُوا يا أُولِي الْأَبْصارِ؛  হে বিচক্ষন মানুষগণ তোমরা শিক্ষা গ্রহণ কর।

ইমাম হুসাইন বরেছিলেন: নরপশুরা কারবালায় আমাকে ছিন্নভিন্ন করবে। আর আমার দেহকে কারবালায় দাফন করা হবে তবে আমার একটি অংশ নাওয়াবিসে দাফন করা হবে। হুরকে যেখানে দাফন করা হয় পূর্বে সেই স্থানকে নাওয়াবিস বলঅ হত বর্তমানে তাকে হিল্লা বলা হয়।

হুর না বুঝে প্রথমে ইমামের পথ রোধ করলেও পরে যখন সত্য বুঝতে পারে ইয়াজিদের দল ত্যাগ করে ইমাম হাসাইনের দলে ফিরে আসে। আর তখনই তিনি ইমামের একজন ঘনিষ্ঠজনে পরিণত হয়।

হ্যা আমারও যদি না জেনে ভুল করে থাকি এবং চিন্তা ও গবেষণার মাধ্যমে সঠিক পথকে বুঝতে পারি তাহলে সেই সত সাহস থাকতে হবে যেন সঠিখ পথে ফিরে আসতে পারি।

সালমান ফার্সিকে মহানবী বলেছেন: মিন্না আহলুল বাইত। কেননা তিনি যখন সত্যকে বুঝতে পারেন তখন সহসাই সত্য পথে চলে আসেন।

624227

মন্তব্য

বইপরিচিতি  :
 ভিডিও সংবাদ:
অন্যান্যলিংক :
আমাদের সম্পর্কে

মন্তব্য