خبرگزاری شبستان

جمعه ۲۶ آیان ۱۳۹۶

الجمعة ٢٨ صفر ١٤٣٩

Friday, November 17, 2017

বিজ্ঞাপন হার

রোহিঙ্গা নারীদের ধর্ষণ করেছে মিয়ানমারের সেনারা: মানবাধিকার সংগঠন

আন্তর্জাতিক বিভাগ: রোহিঙ্গাদের জাতিগতভাবে নির্মূল করতে মিয়ানমারের সেনাবাহিনীর সদস্যরা তাদের নারী ও মেয়েদের ধর্ষণ করেছে। তাদের ওপর যৌন সহিংসতাও চালানো হয়েছে। আজ সোমবার আন্তর্জাতিক মানবাধিকার সংগঠন হিউম্যান রাইটস ওয়াচের (এইচআরডব্লিউ) এক প্রতিবেদনে এ কথা বলা হয়েছে।

নির্বাচিত সংবাদ

মতামতজরিপ  :   Friday, September 08, 2017 নির্বাচিত সংবাদ : 27271

সুচির নোবেল পুরস্কার কেড়ে নিতে আন্তর্জাতিক আবেদন
মিয়ানমারের গণতান্ত্রিক আন্দোলনের নেত্রী ও বর্তমান পররাষ্ট্রমন্ত্রী অং সান সুচির নোবেল পুরস্কার কেড়ে নেয়ার জন্য আন্তর্জাতিক অঙ্গনে অনলাইনভিত্তিক আন্দোলন গড়ে উঠেছে। এরইমধ্যে চেইঞ্জ ডট অর্গ নামের একটি সংগঠন প্রচারণা শুরু করেছে এবং তাদের আবেদনের পক্ষে তিন লাখ ৬৬ হাজার সমর্থক স্বাক্ষর দিয়েছেন।

সুচির নোবেল পুরস্কার কেড়ে নিতে আন্তর্জাতিক আবেদন

 

মিয়ানমারের গণতান্ত্রিক আন্দোলনের নেত্রী ও বর্তমান পররাষ্ট্রমন্ত্রী অং সান সুচির নোবেল পুরস্কার কেড়ে নেয়ার জন্য আন্তর্জাতিক অঙ্গনে অনলাইনভিত্তিক আন্দোলন গড়ে উঠেছে। এরইমধ্যে চেইঞ্জ ডট অর্গ নামের একটি সংগঠন প্রচারণা শুরু করেছে এবং তাদের আবেদনের পক্ষে তিন লাখ ৬৬ হাজার সমর্থক স্বাক্ষর দিয়েছেন।

এ সংগঠনের পক্ষ থেকে যে আর্জি জানানো হয়েছে তাতে বলা হচ্ছে- "নোবেল পুরস্কারপ্রাপ্ত যে ব্যক্তি নিজের দেশে শান্তি বজায় রাখতে পারেন না, শান্তির জন্য তার কাছ থেকে নোবেল পুরস্কার ফিরিয়ে নেয়া উচিত। এ জন্য নোবেল শান্তি পুরস্কার কমিটির কাছে আমরা দাবি জানাচ্ছি যে, অং সান সুচির কাছ থেকে নোবেল পুরস্কার কেড়ে নেয়া হোক।" রোহিঙ্গা ইস্যুতে সুচি বধির হয়ে গেছেন এবং তার নাগিরকদের রক্ষার জন্য তিনি কিছু করছেন না বলেও এ আর্জিতে উল্লেখ করা হয়েছে।

মিয়ানমারের রাখাইন রাজ্যে রোহিঙ্গা মুসলমানদের ওপর গণহত্যা ও বর্বর নির্যাতন অব্যাহত থাকার পরিপ্রেক্ষিতে চেইঞ্জ ডট অর্গ নামের এ সংগঠন সুচির নোবেল পুরস্কার কেড়ে নেয়ার পক্ষে প্রচারণা শুরু করেছে। ১৯৯১ সালে সুচি শান্তিতে নোবেল পুরস্কার পেয়েছিলেন।

মন্তব্য

বইপরিচিতি  :
 ভিডিও সংবাদ:
অন্যান্যলিংক :
আমাদের সম্পর্কে

মন্তব্য