خبرگزاری شبستان

شنبه ۱ اردیبهشت ۱۳۹۷

السبت ٦ شعبان ١٤٣٩

Saturday, April 21, 2018

বিজ্ঞাপন হার

হযরত আব্বাসের আদব ও আখলাক

মাহদাভিয়াত বিভাগ: হযরত আবুল ফজলিল আব্বাস (আলাইসাল্লাম) ছিলেন আমিরুল মুমিনিন হযরত আলী (আ.)'র পুত্র তথা হযরত ইমাম হাসান ও ইমাম হুসাইন (আ.)'র সত ভাই। ২৬ হিজরির চতুর্থ শা'বান জন্মগ্রহণ করেছিলেন ইতিহাসের এই অনন্য ব্যক্তিত্ব। অনেক মহত গুণের অধিকারী ছিলেন বলে তাঁকে বলা হত আবুল ফাজল তথা গুণের আধার। চিরস্মরণীয় ও বরেণ্য এই মহামানবের জীবনের নানা ঘটনার মধ্যে রয়েছে শিক্ষণীয় অনেক দিক।

নির্বাচিত সংবাদ

মতামতজরিপ  :   Saturday, December 09, 2017 নির্বাচিত সংবাদ : 27894

আল কুদস উদ্ধারে মুসলিম উম্মাহর ঐক্যবদ্ধ হতে হবে
মায়ারেফ বিভাগ: মুসলিম জাহানের শীর্ষ মনীষী ও মারজায়ে তাকলীদ হযরত আয়াতুল্লাহ আল উযমা মাকারেম শিরাজী ইহুদিবাদি ইসরাইল ও মার্কিন সম্রাজ্যবাদিদের ছোবল থেকে মুসলিম জাহানের প্রথম কিবলা বায়তুল মুকাদ্দাস মুক্ত করতে সমগ্র মুসলিম উম্মাহকে ঐক্যবদ্ধ হওয়ার আহ্বান জানিয়েছেন।

আল কুদস উদ্ধারে মুসলিম উম্মাহর ঐক্যবদ্ধ হতে হবে

 

মায়ারেফ বিভাগ: মুসলিম জাহানের শীর্ষ মনীষী ও মারজায়ে তাকলীদ হযরত আয়াতুল্লাহ আল উযমা মাকারেম শিরাজী ইহুদিবাদি ইসরাইল ও মার্কিন সম্রাজ্যবাদিদের ছোবল থেকে মুসলিম জাহানের প্রথম কিবলা বায়তুল মুকাদ্দাস মুক্ত করতে সমগ্র মুসলিম উম্মাহকে ঐক্যবদ্ধ হওয়ার আহ্বান জানিয়েছেন।

শাবিস্তান বার্তা সংস্থার রিপোর্ট: মুসলিম জাহানের শীর্ষ মনীষী ও মারজায়ে তাকলীদ হযরত আয়াতুল্লাহ আল উযমা মাকারেম শিরাজী আজ এক অনুষ্ঠানে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনান্ট ট্রাম্প কর্তৃক আল কুদস বা জেরুজালেমকে ইহুদিবাদি ইসরাইলের রাজধানী হিসেবে ঘোষণা দানের তীব্র সমালোচনা করে বলেছেন যে, জায়নবাদি ইসরাইল ফিলিস্তিনি ভূখন্ড দখল করে অবৈধ রাষ্ট্র ইসরাইল গড়ে তুলেছে। এখন এ অবৈধ রাষ্ট্রের সম্প্রসারণের চক্রান্তে জেরুজালেমকে ইহুদিবাদিদের রাজধানী ঘোষণার ধৃষ্টতা দেখিয়েছে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প। ট্রাম্পের এ ধরনের ঘোষণা আন্তর্জাতিক আইনের সুস্পষ্ট লংঘণ। শুধু তাই নয় এ ধরনের  গর্হিত পদক্ষেপের মাধ্যমে মার্কিন প্রেসিডেন্ট প্রায় দেড় শত কোটি মুসলমানদের বিরুদ্ধে অবস্থান নিয়েছেন।

তিনি বলেন: আমরা যদি একটু গভীরভাবে পর্যবেক্ষণ করি তাহলে দেখতে মুসলিম জাহানের প্রথম কিবলা বায়তুল মুকাদ্দাস ও ফিলিস্তিনি ভুখন্ডের প্রতি ইহুদিবাদি ইসরাইল এবং আমেরিকার ন্যাক্কারজনক পদক্ষেপ এবং লোভাতুর দৃষ্টির পেছনে সৌদি আরবসহ কিছু আরব দেশের বিশ্বাসঘাতকতা দায়ী। কেননা তারা একদিকে গোপনে ইসরাইলের সাথে সম্পর্ক বজায় রাখছে আর অপরদিকে মধ্যপ্রাচ্যের বিষয়ে আমেরিকার নাক গলানোর সুযোগ করে দিচ্ছে। কাজেই এ অবস্থা থেকে মুক্তি পেতে হলে অবস্যই মুসলিম জাহানকে এক ও অভিন্ন অবস্থান নিতে হবে এবং যারা ফিলিস্তিনি মুসলমানদের সাথে বিশ্বাস ঘাতকতা করছে, তাদের মুখোশ উন্মোচন করতে হবে। 

মন্তব্য

বইপরিচিতি  :
 ভিডিও সংবাদ:
অন্যান্যলিংক :
আমাদের সম্পর্কে

মন্তব্য