خبرگزاری شبستان

دوشنبه ۲۵ تیر ۱۳۹۷

الاثنين ٤ ذو القعدة ١٤٣٩

Monday, July 16, 2018

বিজ্ঞাপন হার

মহীয়সী ফাতেমা মাসুমা (আ.) মুসলিম নারীদের চিরন্তন আদর্শ

মায়ারেফ বিভাগ: মহীয়সী হযরত ফাতেমা মাসুমা (আ.) ৭ম ইমাম হযরত মুসা কাজীমের (আ.) কন্যা এবং ৮ম ইমাম হযরত আলী ইবনে মুসা রেজার (আ.) বোন; তার মাতার নাম হযরত নাজমে খাতুন। তিনি রাসূলের (সা.) আহলে বাইতের (আ.) অন্যতম মহীয়সী রমনী।

নির্বাচিত সংবাদ

মতামতজরিপ  :   Wednesday, December 13, 2017 নির্বাচিত সংবাদ : 27937

মৃত্যুর ভয় মানুষকে গুনাহ থেকে বিরত রাখে
মায়ারেফ বিভাগ: পবিত্র কোরআনের আয়াতের বর্ণনা অনুযায়ী প্রত্যেক জীবকেই এ পৃথিবীতে মৃত্যুর স্বাদ গ্রহণ করতে হবে। অর্থাৎ এ পৃথিবীর কোন মানুষ এমনকি প্রাণীই মৃত্যুর হাত থেকে রেহাই পাবে না।

মৃত্যুর ভয় মানুষকে গুনাহ থেকে বিরত রাখে

 

মায়ারেফ বিভাগ: পবিত্র কোরআনের আয়াতের বর্ণনা অনুযায়ী প্রত্যেক জীবকেই এ পৃথিবীতে মৃত্যুর স্বাদ গ্রহণ করতে হবে। অর্থাৎ এ পৃথিবীর কোন মানুষ এমনকি প্রাণীই মৃত্যুর হাত থেকে রেহাই পাবে না।

শাবিস্তান বার্তা সংস্থার রিপোর্ট: ইসলামি প্রজাতন্ত্র ইরানের বিশিষ্ট ইসলামি চিন্তাবিদ ও গবেষক হযরত আয়াতুল্লাহ রুহাল্লাহ কারাহি গতকাল এক অনুষ্ঠানে বক্তৃতাকালে বলেন: আল্লাহর ওলী, মু’মিন ও খোদাভীরু ব্যক্তিরা কখনও বাতিল ও অন্যায়ের কাছে মাথা নত করে না। বরং তারা একমাত্র আল্লাহকে ভয় করে এবং আল্লাহ যা কিছু থেকে বিরত থাকতে বলেছেন, সেগুলো থেকে দূরে থাকে। মৃত্যু ও মৃত্যু ব্যক্তিকে কখনও ঈমানদাররা ভয় পায় না; কেননা মৃত্যুর সকলের জন্য নির্ধারিত, নির্দিষ্ট সময়ে এবং স্থানে প্রত্যেককে মৃত্যুর স্বাদ গ্রহণ করতে হবে। আর মৃত্যু ব্যক্তিও কখনও ভয় পাবার কোন জিনিস নয়; কেননা একজন মৃত্যু ব্যক্তি প্রাণহীন এবং তার পক্ষে কারও কোন ক্ষতি করার ক্ষমতা নেই; সে নিজেও অক্ষম। কিন্তু তথাপিও একশ্রেণীর ব্যক্তি মৃত্যু ব্যক্তিকে বা মৃত ব্যক্তি শরীরকে জীবিত কোন শক্তিশালী ও ক্ষমতাবান ব্যক্তির চেয়েও বেশি ভয় পেয়ে থাকে; এটা সত্যিও অশ্চর্যের বিষয়।

তিনি আরও বলেন: গুনাহ ও অন্যায় কর্ম থেকে বিরত থাকা সর্বাবস্থায় উত্তম ও কাংখিত। সেটা মৃত্যুর ভয়ে হোক অথবা জাহান্নামের আজাবের ভয়ে হোক না কেন। আমাদের সমাজে অনেকের আছেন যারা মৃত্যুর ভয়ে গুনাহ ও নাফরমানি থেকে বিরত থাকে; অবস্য এটা মোটেও দোষনীয় নয়; বরং সমীচীন বটে।

মন্তব্য

বইপরিচিতি  :
 ভিডিও সংবাদ:
অন্যান্যলিংক :
আমাদের সম্পর্কে

মন্তব্য