خبرگزاری شبستان

شنبه ۱ اردیبهشت ۱۳۹۷

السبت ٦ شعبان ١٤٣٩

Saturday, April 21, 2018

বিজ্ঞাপন হার

কেন ইমাম হুসাইনকে হেদায়েতের আলো এবং মুক্তির তরী বলা হয়?

মাহদাভিয়াত বিভাগ: চতুর্থ হিজরির তৃতীয় শা’বান মানবজাতি ও বিশেষ করে, ইসলামের ইতিহাসের এক অনন্য ও অফুরন্ত খুশির দিন। কারণ, এই দিনে জন্ম নিয়েছিলেন বিশ্বনবী হযরত মুহাম্মাদ (সা.)’র প্রাণপ্রিয় দ্বিতীয় নাতি তথা বেহেশতী নারীদের নেত্রী হযরত ফাতিমা (সা.) ও বিশ্বাসীদের নেতা তথা আমীরুল মুমিনিন হযরত আলী (আ.)’র সুযোগ্য দ্বিতীয় পুত্র এবং ইসলামের চরম দূর্দিনের ত্রাণকর্তা ও শহীদদের নেতা হযরত ইমাম হুসাইন (আ.)।

নির্বাচিত সংবাদ

মতামতজরিপ  :   Sunday, February 11, 2018 নির্বাচিত সংবাদ : 28392

দয়া, মহানুভবতা ও সদাচারণ রাসূলের (সা.) শ্রেষ্ঠত্বের কারণ
মায়ারেফ বিভাগ: আল্লাহ তায়ালা রাসূলকে (সা.) চারটি বিশেষ বৈশিষ্ট্যের কারণে অন্যান্য মানুষ এমনকি নবী-রাসূলদের থেকে শ্রেষ্ঠত্বের অধিকারী করেছেন; আর সে বৈশিষ্ট্যগুলো হচ্ছে সুদৃঢ় ঈমান, দয়া, মহানুভবতা ও সদাচারণ।

দয়া, মহানুভবতা ও সদাচারণ রাসূলের (সা.) শ্রেষ্ঠত্বের কারণ

 

মায়ারেফ বিভাগ: আল্লাহ তায়ালা রাসূলকে (সা.) চারটি বিশেষ বৈশিষ্ট্যের কারণে অন্যান্য মানুষ এমনকি নবী-রাসূলদের থেকে শ্রেষ্ঠত্বের অধিকারী করেছেন; আর সে বৈশিষ্ট্যগুলো হচ্ছে সুদৃঢ় ঈমান, দয়া, মহানুভবতা ও সদাচারণ।

শাবিস্তান বার্তা সংস্থার রিপোর্ট: ইসলামি প্রজাতন্ত্র ইরানের খ্যাতনামা ইসলামি গবেষক ও চিন্তাবিদ হযরত হুজ্জাতুল ইসলাম ওয়াল মুসলিমিন মুহাম্মাদ বাকের আলাভী তেহরানি আজ এক অনুষ্ঠানে বক্তৃতাকালে বলেন: আল্লাহ তায়ালা এক লক্ষ ২৪ হাজার নবী-রাসূলদের মধ্যে থেকে একমাত্র ইসলামের নবী হযরত মুহাম্মাদকে (সা.) মিরাজে নিজের সান্নিধ্যে ডাকেন। এ মিরাজে রাসূল (সা.) সশরীরে আল্লাহর আরশে হাজির হন এবং তার সাথে সাক্ষাত করেন। এ সময় আল্লাহ তার সবচেয়ে প্রিয় রাসূলকে বলেন: হে আহমাদ! আমি চারটি বৈশিষ্ট্যের কারণে তোমাকে সর্বশ্রেষ্ঠ নবী ও রাসূল হিসেবে মনোনীত করেছি, সে বৈশিষ্ট্যগুলো হচ্ছে সুদৃঢ় ঈমান, দয়া, মহানুভবতা ও সদাচারণ।

তিনি বলেন: ইয়াকিন তথা ঈমানের গভীর থেকে আল্লাহর প্রতি বিশ্বাস ও আস্থা মানুষকে অভিষ্ঠ লক্ষ্যে পৌছাতে সাহায্য করে। আর ইয়াকিন যদি ইলম তথা জ্ঞানের সাথে হয়, তাহলে নিশ্চয় দুনিয়া ও পরকালে কল্যাণ হাসিল করা সম্ভব।

তিনি বলেন: আমরা সামান্যতম বিপদ ও মুসিবাতে ধৈর্য হারিয়ে ফেলি। আর এর অর্থ হল আল্লাহর প্রতি আমাদের ঈমান ও আস্থার ঘাটতি রয়েছে। কাজেই আমরা যদি জীবনে সফলকাম হতে চাই; তবে অবস্যই আল্লাহর প্রতি ঈমানকে মজবুত করতে হবে।

 

মন্তব্য

বইপরিচিতি  :
 ভিডিও সংবাদ:
অন্যান্যলিংক :
আমাদের সম্পর্কে

মন্তব্য