خبرگزاری شبستان

شنبه ۲۸ مهر ۱۳۹۷

السبت ١٠ صفر ١٤٤٠

Saturday, October 20, 2018

বিজ্ঞাপন হার

ইরাকের রাষ্ট্রদূতকে ইরানের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে তলব

ইরাকের দক্ষিণাঞ্চলীয় বসরা শহরের ইরানি কনস্যুলেটে দুর্বৃত্তদের হামলার প্রতিবাদ জানাতে আজ (শনিবার) ভোরে তেহরানে নিযুক্ত ইরাকি রাষ্ট্রদূতকে ইরানের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে তলব করা হয়েছে। এ সময় ইরানি কনস্যুলেটের নিরাপত্তা রক্ষার ব্যাপারে ইরাকি নিরাপত্তা কর্মীদের অবহেলার প্রতিবাদ জানানো হয়।

নির্বাচিত সংবাদ

মতামতজরিপ  :   Thursday, February 15, 2018 নির্বাচিত সংবাদ : 28425

ইরাকের পুনর্গঠন বিষয়ে কুয়েতে আন্তর্জাতিক সম্মেলন
রাজনীতি বিভাগ: যুদ্ধবিধ্বস্ত ইরাকের পুনর্গঠন নিয়ে কুয়েতের রাজধানী কুয়েত সিটিতে আন্তর্জাতিক সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়েছে। দেশটির পুনর্গঠনে প্রয়োজনীয় তহবিল সংগ্রহের জন্য এ সম্মেলনের আয়োজন করা হয়। উগ্র সন্ত্রাসী গোষ্ঠী দায়েশের হত্যা ও ধ্বংসযজ্ঞের কারণে ইরাক মারাত্মকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে।

ইরাকের পুনর্গঠন বিষয়ে কুয়েতে আন্তর্জাতিক সম্মেলন

 

রাজনীতি বিভাগ: যুদ্ধবিধ্বস্ত ইরাকের পুনর্গঠন নিয়ে কুয়েতের রাজধানী কুয়েত সিটিতে আন্তর্জাতিক সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়েছে। দেশটির পুনর্গঠনে প্রয়োজনীয় তহবিল সংগ্রহের জন্য এ সম্মেলনের আয়োজন করা হয়। উগ্র সন্ত্রাসী গোষ্ঠী দায়েশের হত্যা ও ধ্বংসযজ্ঞের কারণে ইরাক মারাত্মকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে।

সম্মেলন উপলক্ষে গতকাল (মঙ্গলবার) কুয়েত সিটিতে দ্বিতীয় দিনে বিশ্বের বিভিন্ন দেশের রাজনৈতিক নেতা ও সরকারি কর্মকর্তারা যোগ দেন। ইরাকের পুনর্গঠনে কুয়েতের আমির শেখ সাবাহ আল-আহমাদ আলে সাবাহ ২০০ কোটি ডলার দেয়ার প্রতিশ্রুতি দেন। এর মধ্যে ১০০ কোটি ঋণ হিসেবে এবং বাকি অর্থ বিভিন্ন প্রকল্পে খরচ করা হবে।  সম্মেলনে তিনি বলেছেন, বিপুল ক্ষতির মুখে আন্তর্জাতিক সমর্থন ছাড়া ইরাক সরকার একা দেশ পুনর্গঠন করতে পারবে না।

ইরাকের পুনর্গঠনে আরেক প্রতিবেশী দেশ তুরস্ক ৫০০ কোটি ডলার দেয়ার ঘোষণা দিয়েছে। এ অর্থ ঋণ ও বিনিয়োগ হিসেবে দেয়া হবে। জাতিসংঘ মাহসচিব অ্যান্তোনিও গুতেরেস ইরাককে অর্থ সহায়তা দেয়ার জন্য আন্তর্জাতিক সমাজের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন। তিনি জানান, ইরাকে দায়েশের সহিংসতার কারণে এখনো ২৫ লাখ মানুষ বাস্তচ্যুত অবস্থায় রয়েছে।

সম্মেলনে ইরাকের প্রধানমন্ত্রী হায়দার আল-এবাদি ও ইউরোপীয় ইউনিয়নের প্রধান ফেডেরিকা মোগেরিনি বক্তব্য রাখেন। দেশ পুনর্গঠনের জন্য ইরাক সরকার আট হাজার ৮২০ কোটি ডলার সহায়তা চায়। ২০১৪ সালে দায়েশ সন্ত্রাসীরা দেশটিতে সহিংসতা শুরু করে এবং বিরাট এলাকা দখলে নিয়ে ব্যাপক হত্যা ও ধ্বংসযজ্ঞ চালায়।

বিশ্লেষণও নোট :
|
|
|

মন্তব্য

বইপরিচিতি  :
 ভিডিও সংবাদ:
অন্যান্যলিংক :
আমাদের সম্পর্কে

মন্তব্য